Hello Testing Bangla Kobita

প্রতি মাসে দ্বিতীয় রবিবার

Advertisement

2nd Year | 2nd Issue

রবিবার, ২৭শে আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | Sunday, 11th July 2021

বি শে ষ  র চ না । পর্ব ১

নারীবাদের দ্বিতীয় তরঙ্গের সময় থেকে তার পরবর্তী পঞ্চাশ বছরের ফরাসী ও মার্কিনি বিশিষ্ট মহিলা কবিদের এক গুচ্ছ জানা অজানা কবিতা নিয়ে হাজির হয়েছেন বর্তমানে কর্মসূত্রে ফ্রান্স নিবাসী ম্যাডিকেল আল্ট্রাসাউণ্ডের তরুণ গবেষক…

রূ প ক  ব র্ধ ন   রা য়

নারী শহরের সম্পদ

পনেরোশো শতকে ক্রিস্টিন দে পিজান, সতেরোশো শতাব্দীর আনে ব্র‍্যাডস্ট্রীট অথবা ১৭৯২ সালে মারি ওলস্টোক্রাফট বিরচিত “আ ভিণ্ডিকেশান অফ দি রাইটস অফ ওম্যান” এর অনুপ্রেরণায় অঙ্কুরিত নারীবাদের প্রথম তরঙ্গ ১৯২০ সালে, তৎকালীন মার্কিন নারীকে এনে দিয়েছিল গণতান্ত্রিক ভোটাধিকার।

কিন্তু তার ৩ দশক পরেও আন্তর্জাতিক কীর্তিবাস নারীর পক্ষ্যে সাহিত্যে, এবং মূলত পুরুষ শাসিত কবিতার জগতে স্বাধীন যাপন ছিল প্রায় অসাধ্য। ১৯৪৯ সালে সিমন দি বাভোয়া রচিত “দি সেকণ্ড সেক্স” সেই বাঁধে চিড় ধরায়, এবং ফ্রান্সে শুরু হয় নারীবাদের দ্বিতীয় তরঙ্গের উদযাপন। ১৯৫৩ সালে “দি সেকণ্ড সেক্স” মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ইংরেজিতে ভাষান্তরিত হয়। ১৯৬৩ সালে বেট্টি ফ্রিডান লেখেন “দা ফেমিনিন মিসটিক”। এরপর অবশ্য আতর্জাতিক কবিতার আঙিনায় মহিলা কবিদের আরে পিছনের সারিতে বদ্ধ থেকে যেতে হয়নি। কেবল নারীবাদি রাজনীতির বিভিন্ন আঙ্গিক, আবেগ বা ধারাই নয় সে সমস্ত কবিদের কলমে উঠে এসেছে এক সম্পূর্ণ আধুনিক মানবিক যাপন, যেখানে প্রেম, ভালবাসা, অভিমান বা রাগের মত অনুভুতির সাথে সাথেই ধরা পড়ে সুররিয়ালিজম, টাওইজম, অথবা মার্ক্সবাদের দার্শনিক তত্ত্ব। সিমন যেমন বলেছেন “জেণ্ডার ইজ সোশাল”। 

নারীবাদের দ্বিতীয় তরঙ্গের সময় থেকে তার পরবর্তী পঞ্চাশ বছরের ফরাসী ও মার্কিনি বিশিষ্ট মহিলা কবিদের এক গুচ্ছ জানা অজানা কবিতাকে বাঙালী পাঠক মননে পৌঁছে দেওয়ার উদ্দেশ্য নিয়েই বর্তমান কাজটির(সিরিজটির) প্রয়াস।

একে একে যেমন উঠে এসেছেন যুক্তরাষ্ট্রের ডেনিস লেভেরটোভ, এলিজাবেথ বিশপ, সিলভিয়া প্লাথ, এ্যানে সেক্সটন, ম্যারিয়ান মোর অথবা ফ্রান্সের সিলভিয়া ব্যারোন সুপারভিএলে, মারি ক্লেয়ার ব্যানকার্ট, মার্টিনে ব্রোডা, আন্নে মারি এ্যালবিয়াক ইত্যাদির নাম আবার তেমনই ভাষান্তরিত হয়েছেন দ্বিতীয় তরঙ্গের নাম না জানা রাজনৈতিক কিছু কবি।

এই অনুসঙ্গই ” নারী শহরের সম্পদ”, যেখানে নামটি নিজেই ক্রিস্টিন ডে পিজানের বই “The Treasure of the City of Ladies”এরই অনুপ্রেরণার অনুদান।

এই সংখ্যায় ফরাসী কবি, সাহিত্য আলোচক এবং অনুবাদক মার্টিনে ব্রোদা (মার্চ ১৯৪৭এপ্রিল ২০০৯)। একই সাথে দর্শন এবং লেটারস পড়া শেষ করে ব্রোদা মূলত কবিতা রচনার দিকেই নিজেকে নিমজ্জিত করেন এছাড়াওএ্যাকশান পোয়েটিকজার্নালের সদস্যা এবং সি এন আর এস-এ গবেষক হিসাবেও যুক্ত ছিলেন  মূলত আধুনিক কবিতা নিয়েই ব্রোদার কাজনিজের কবিতা ছাড়াও, পল সেলানের কাজের অনুবাদ এবং আলোচনার জন্য ব্রোদার খ্যাতি রয়েছে

মার্টিনে ব্রোদা (Martine Broda)

আমি তোমায় বলতে চেয়েছি

অশ্রু নয় শব্দেই

আমি তোমায় ও কথাটা বলতে চেয়েছি

 

ঠিক যখন 

আমার প্রেমের অভ্যন্তরে

একটা দিগন্ত জেগেছিল

তোমায় চেনার প্রথম সেদিন 

আমায় দিয়েছে এক অনভিজ্ঞ সূচনা আমায় দিয়েছে

অনভ্যস্ত মুখ

 

সেই কবিতার নাম


আমি ধুয়ে ফেলি

আমি ধুয়ে ফেলি

যা আমি কুড়িয়েছি

আলোয় বা অশ্রুর 

মরুদ্দানে আমি খাই 

আমার জ্বলন্ত চোখ


একটা কুঠারের সাথে কবিতা…

একটা কুঠারের সাথে কবিতা

যারা প্রেম জানেনি

তাদের ভালবাসার সাথে কবিতা

 

কিন্তু যারা বাঁচার জন্য মরে গেল

যাতে আমরা বাঁচতে পারি

 

আমাদের কি আবার দেখা হবে

দেখা হবে আবার

 

কিন্তু যারা এগিয়ে গেছে

কিন্তু যারা এগিয়ে গেছে

আকাশের ভয়াবহ শূন্যতার উপর

 

ঠেস দেওয়া হাতের পাতায়

এত নীল এত শান্ত প্রতিচ্ছবির

খেলা চলে চিরতরে হারায়

একটা পিরারিক বিজয়

 

আমাদের কি দেখা হবে

তারা থেকে তারায় ভাবনা

আকাশের স্থিরতায় এক সুতো নিক্ষেপ করে

 

দেখা হবে আবার

 

একটি কুঠার দিয়ে

ভালবাসা দিয়ে খণ্ডনরত

আমাদের


সে নিছকই ছেড়ে গেছে…

সে নিছকই লুঠের মালের মত ঝিলমিলে

একটা হারানো স্মৃতি ছেড়ে গেছে

 

উদ্ভাসিত আমি ছিলাম

সেই দীর্ঘ আলোর দেবদূত

পাতাদের এক বিশুদ্ধ নির্যাস

 

সংক্ষিপ্ত আলো

থাকুক

 

যখন ওরা…

যখন ওদের যারা যারা যন্ত্রণা অতিক্রম করেছে

ছদ্মবেশে মুখোমুখি দেখা হয়

ওরা বিবস্ত্র হয় দ্রুত

রক্তে ঝলসানো ওদের চামড়া

ওরা নিজেদের দুর্দান্ত উত্তাপটায় উষ্ণ করে

 

এবং তা অবিশ্বাস্য প্রেম

তোমার বিস্মৃত চাহনির মত ততটাই নীল

আগের থেকে আরো মনোরম উদ্দীপনা

আমরা তাকে জীবনের মত পান করি

 

তার আরোগ্য হয়

ক্ষত থেকে আঁশ ঝরে পড়ে

গুরুত্বপূর্ণ কাজ-

কবিতা গ্রন্থ 

Éblouissements , Paris, Flammarion, 2003

Summer Poems , Paris, Flammarion, 2000

Eight Pages about the Shoah in Robert Antelme , Paris, Gallimard, 1996

Poèmes d’Éblouissements in 29 Femmes / une anthologie , Paris, Stock, 1994

Grand jour , Paris, Belin, 1994, (Contemporary Extreme)

Ce recommencement , Nice, Unes, 1992 (with Frédéric Benrath )

Passage , Lettres de Casse, 1985

Tout ange est terrible , Paris, Clivages, 1983 (with André Marfaing )

Double , La Répétition, 1978 (with Gisèle Celan-Lestrange )

অনুবাদ

Paul Celan , La Rose de personne / Die Niemandsrose , bilingual edition, Paris, Le Nouveau Commerce 1979. New edition, Paris, José Corti, 2002.

Paul Celan , Grille de parole , Paris, Christian Bourgois, 1991.

Paul Celan , Enclos du temps , Paris, Clivages, 1985.

Nelly Sachs , Enigmes en feu , in Eli, lettres, Enigmes en feu , Paris, Belin, 1989.

Nelly Sachs , The one who sets out in quest , in Po & sie , n o  69, Paris, Belin, 1994.

TS Eliot , East Coker , (one of the quartets), in Europe , n o  830-831, June-July 1998.

Walter Benjamin , The Translator’s Task , in Po & sie , n o  55, Paris, Belin, 1991, p. 150-158

রূপক বর্ধন রায়

অনুবাদক

GE Heathcare-এ বিজ্ঞানী হিসেবে কর্মরত, ফ্রান্স-এর নীস শহরে থাকেন। টার্কি-র সাবাঞ্চি বিশ্ববিদ্যালয়ে পিএইচডি করেছেন। এছাড়াও মার্কিন যুক্ত্রাস্ট্রের নর্থ ক্যারোলিনা স্টেট ইউনিভারসিটি ও পি এইচ ডির পর বছর খানেক জার্মানির ফ্রনহফার সোসাইটিতে সায়েনটিস্ট হিসেবেও কাজ করেছেন। লেখালেখির স্বভাব বহুদিনের। মূলত লেখেন বিজ্ঞান, ইতিহাস, ট্রাভেলগ, সাহিত্য মনন নিয়েই। কলেজজীবনে বন্ধুরা মিলে “দেওয়াল” নামক কবিতা পত্রিকা চালিয়েছেন কয়েক বছর। এছাড়াও কবিতা, গদ্য প্রকাশ পেয়েছে একাধিক বাঙলা অনলাইন পত্র পত্রিকায়। লেখা লেখি ছাড়াও গান বাজনা, নোটাফিলি, নিউমিসম্যাটিক্সের মত একাধিক বিষয়ে রূপকের সমান আগ্রহ রয়েছে।

আরও পড়ুন...